দাগনভূঞা প্রেসক্লাব সাবেক সভাপতি সুমনকে মিথ্যা সংবাদ দিয়ে হত্যার হুমকি- থানায় জিডি

12

সিজস্ব প্রতিবেদক->>

দাগনভূঞা প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি, সাপ্তাহিক ফেনীর প্রত্যয়ের প্রকাশক ও দৈনিক ইনকিলাব পত্রিকার দাগনভূঞা উপজেলা সংবাদদাতা সৈয়দ ইয়াছিন সুমনকে মিথ্যা অপবাদ দিয়ে সংবাদ প্রকাশ করে সন্মানহানী করা ও হত্যার হুমকি দিয়েছে কাওসার আলি শাহেদ (৩২) নামের এক মাদকসেবী।

সে উপজেলার দক্ষিন আলীপুর গ্রামের (বর্তমান আমান উল্যাহপুর ৯ নং ওয়ার্ড দাগনভূঞা পৌরসভা) কোরবান আলির বড় ছেলে। এ ঘটনায় নিরাপত্তা চেয়ে গত শনিবার সকালে দাগনভূঞা থানায় সাধারণ ডায়েরি করেছেন ভূক্তভোগী সাংবাদিক।

সাধারণ ডায়েরীতে সৈয়দ ইয়াছিন সুমন উল্লেখ করেন, গত ১৯ এপ্রিল সন্ধায় দাগনভূঞা পৌরসভা ১ নং ওয়ার্ড আলাইয়ারপুর গ্রামের ইঞ্জিনিয়ার তাহের সাহেবের বাড়িতে আমার শ্যালিকার স্বামীর সাথে একটি পারিবারিক বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত বৈঠকে এলাকার কয়েকজন গন্যমান্য ব্যক্তি উপস্থিত ছিলেন। বৈঠকের শুরু থেকে কাওসার আলি শাহেদ আমার সাথে খারাপ ব্যবহার শুরু করে। এক পর্যায় সে আমাকে মেরে লাশ গুম করে ফেলার হুমকি প্রদান করে। সে নিজেকে প্রভাবশালী দাবি করে বলেন তোরমত দু’চারজন সাংবাদিককে মেরে ফেললেও কেউ আমার কিছু করতে পারবেনা। পৌরসভা যারা চালায় তাদের আমি মাসোহারা দিয়ে থাকি। থানা পুলিশ আমার কিছুই করতে পারবেনা। সে আমাকে আরও হুমকি দেন যে আমি যদি আমার শ্যালিকার কোন বিষয়ে তাদের সহযোগিতা করার চেষ্টা করি তাহলে আমার শালীর সাথে আমার পরকিয়ার সর্ম্পক আছে মর্মে সমাজে ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে আমার সন্মান নষ্ট করবে। এবং আমি ও আমার পরিবারের সদস্যদের চরম ক্ষতিসাধন করবে। বর্তমানে আমি ও আমার পরিবার চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভূগতেছি।এ বিষয়ে কাওসার আলি শাহেদকে বার বার ফোন করে পাওয়া যায়নি। দাগনভূঞা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ইমতিয়াজ আহমেদ বলেন, বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে খতিয়ে দেখছে পুলিশ।